ঢাকা শিশু হাসপাতালের নিয়োগ নিয়ে কিছু কথা (আইশা আক্তার)

ঢাকা শিশু হাসপাতালের বাতিল হওয়া ১৫০ জনের সার্কুলারের কথা মনে করে, চলমান সার্কুলার নিয়ে অনেকেই বিভিন্ন ধরণের মন্তব্য করছেন। 
চলুন একটু গভিরভাবে চিন্তা করি। 
সবাই বলতে চাচ্ছেন বারবার সার্কুলার দেয়ার কারণ, তারা টাকা নেয়ার প্রক্রিয়া চালাচ্ছেন। আমিও প্রথমদিকে এমনটিই ভেবেছিলাম। কিন্তু ভাল করে ভেবে দেখলাম, বিষয়টা আসলে তা নয়। 

কেননা তাদের ১৫০ জন নিয়োগের সার্কুলারটি প্রকাশ হয়েছিল গত ২৪/০৭/২০ ইং তারিখে। আর সার্কুলারটি বাতিল করেছিল ২৭/০৬/২০ ইং তারিখে। অর্থাৎ মাত্র তিন দিন পরেই বাতিল ঘোষণা দেয়। যার ফলে টাকা উপার্জনের ধান্দা করছে শিশু হাসপাতালের কর্তৃপক্ষ এমনটি মনে হচ্ছেনা। 

সার্কুলারের একটা বিষয় অনেকের কাছেই বিব্রতকর, আর তা হলো: ডিপ্লোমা/ বিএসসি সবাইকেই এক পদে, একই বেতনে আবেদনের যোগ্য বলে ধরা হয়েছে। যদিও এটা মনে হচ্ছে ঠিক নয়, কিন্তু বাস্তবতা হলো, বিএসসি বা ডিপ্লোমার জন্য এখনও সুষ্পষ্টভাবে পদ সৃষ্টি করা হয়নি। যার ফলে অনেক আগে থেকেই ঢাকা শিশু হাসপাতালের এই পদের নিয়োগ এভাবেই হচ্ছে।

গত ১৮/০৯/২০১৮ ইং তারিখে  শিশু হাসপাতালের যে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি হয়েছিল তাতে ১৫৫ জনকে স্টাফ নার্স পদে নিয়োগ দেয় কর্তৃপক্ষ।  সেই সার্কুলারটিতে আবেদনকারিদের মধ্য থেকে প্রাথমিক বাছাইয়ের পর ২৫৯৭ জনকে লিখিত পরীক্ষার জন্য ডাকা হয়েছিল ১৬/১১/২০১৮ ইং তারিখে। এরপর সেই পরিক্ষার দিনেই পরিক্ষার ফলাফল দিয়ে দেন কর্তৃপক্ষ। পরের দুইদিন অর্থাৎ ১৭ ও ১৮ তারিখে অনুষ্ঠিত হয় মৌখিক পরিক্ষা। মৌখিক পরিক্ষার জন্য ৫৯৬ জনকে মোধাভিত্তিতে বাছাই করা হয়। (লিখিত পরিক্ষায় প্রাপ্ত নম্বরের ভিত্তিতে)
এরপর মাত্র ৭ দিন পরেই চূরান্ত নির্বাচিত প্রার্থীদের তালিকা প্রকাশ করেন নিয়োগ কর্তৃপক্ষ। মৌখিক পরিক্ষায় অংশ নেয়া প্রত্যেকের প্রাপ্ত নম্বরসহ প্রকাশ করা হয়েছিল। 

মূলত এতটা দ্রুত নিয়োগ কার্যক্রম পরিচালিত হলে দূর্নীতি হবার সম্ভবনা খুবই কম থাকে। সর্বশেষ গত ০২ই জুলাই ৩০ জনকে নিয়োগের চূরান্ত তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। এরমাত্র ৮ দিন পরেই বর্তমানে চলমান সার্কুলারটি প্রকাশ করেছে কর্তৃপক্ষ। একটা নিয়োগ হবার ১ সপ্তাহ পরেই আবারো নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি হলে তা স্বাভাবিকভাবেই চিন্তার বিষয় হয়ে দাড়ায়।
তারপরো আমার দেখা ও অভিজ্ঞতার  আলোকে বলতে পারি শিশু হাসপাতালের নিয়োগ স্বাধারণত পিওরই হয়ে থাকে।

রাইটার--
মোছা: আইশা আক্তার
সিনিয়র স্টাফ নার্স
ঢাকা শিশু হাসপাতাল (২০১৮ তে নিয়োগ প্রাপ্ত)

Next Post Previous Post